Notice: Trying to get property 'user_login' of non-object in /home/bcssolutionbd/public_html/wp-content/plugins/wordpress-seo/frontend/schema/class-schema-utils.php on line 25

পদ-প্রকরণ

দুঃসাহসী অভিযাত্রীরা মানুষের চিরন্তন কল্পনার রাজ্য চাঁদের দেশে পৌঁছেছেন এবং মঙ্গলগ্রহেও যাওয়ার জন্য তাঁরা প্রস্তুত হচ্ছেন।

ওপরের বাক্যটিতে
‘রা’ (অভিযাত্রী + রা),
‘এর’ (মানুষ + এর),
‘র’ (কল্পনা + র),
‘এ’ (মঙ্গলগ্রহ + এ) প্রভৃতি চিহ্নগুলোকে বিভক্তি বলা হয়। বাক্যে ব্যবহৃত বিভক্তিযুক্ত শব্দ ও ধাতুকে পদ বলে।

পদকে প্রধানত দুই ভাগে ভাগ করা যায়-

১. ক্রিয়া পদ
২. নাম পদ

(ক) বিশেষ্য
(খ) বিশেষণ
(গ) সর্বনাম
(ঘ) অব্যয়

পরিবর্তনশীলতার উপর ভিত্তি করে পদ প্রধানত দুই প্রকার : সব্যয় পদ ও অব্যয় পদ। সব্যয় পদ চার প্রকার : ১. বিশেষ্য ২. বিশেষণ ৩. সর্বনাম ৪. ক্রিয়া। সুতরাং পদ মোট পাঁচ প্রকার : বিশেষ্য, বিশেষণ, সর্বনাম, ক্রিয়া এবং অব্যয়।
আলোচ্য বাক্যটিতে

১. বিশেষ্য পদ: অভিযাত্রী, মানুষ, কল্পনা, রাজ্য, দেশ, মঙ্গলগ্রহ
২. বিশেষণ পদ: দুঃসাহসী, চিরন্তন, প্রস্তুত
৩. সর্বনাম পদ : তাঁরা
৪. ক্রিয়া পদ: পৌছেছেন, হচ্ছেন, যাওয়ার (অসমাপিকা ক্রিয়া)
৫. অব্যয় পদ: এবং, জন্য

Add a Comment